করোনায় সব তছনছ, সবজি বিক্রি করে পেট চালাচ্ছেন অনূর্ধ্ব-১৯ দলের খেলোয়াড় দীপ

রবিবার, জুলাই ১২, ২০২০ ১২:০৯ পূর্বাহ্ণ

দীপ বাগ। ভারতের মোহনবাগানের অনূর্ধ্ব-১৯ দলের ডিফেন্ডার। লকডাউনের ধাক্কায় তছনছ হয়ে গিয়েছে সব। সংসারে নেমে এসেছে অন্ধকার। ই সংসার চালাতে রাস্তার ধারে সবজি বিক্রি করছেন তারকা হয়ে ওঠার সমস্ত সম্ভাবনা থাকা এই তরুণ ফুটবলার।

দীপের বাড়ি হুগলির কোন্নগরের বাঞ্ছারামপুরে। বাবা রিক্সাচালক। দীর্ঘ লকডাউনে প্রায় আয় একেবারেই কমে গিয়েছে। তাই বাবার পাশে সংসারের হাল ধরেছে দ্বীপ। রাস্তার ধারে প্লাস্টিক বিছিয়ে আলু, পটল, কুমড়ো, ঢ্যাঁড়স বিক্রি করছে।

তবে ফুটবলকে ভোলেননি দীপ। রোজ সকালে পাইকারি বাজারে যাওয়ার আগে প্র্যাকটিস সেরে নেন দীপ। শারীরিক কসরতের পাশাপাশি কিছুক্ষণ বল নিয়েও চলে অনুশীলন। তারপর সাইকেল চালিয়ে সোজা পাইকারি বাজার। সেখান থেকে জিনিসপত্র কিনে এনে পাড়ায় বিক্রি করেন।

অ্যাকাডেমিতে থাকা-খাওয়ার পাশাপাশি মাসিক এক হাজার টাকা করে ভাতাও মিলত। কিন্তু লকডাউনে বন্ধ অ্যাকাডেমি। বন্ধ হয়েছে ভাতাও। যে ধরনের খাবার দরকার একজন খেলোয়াড়ের সেই ধরনের প্রোটিন যুক্ত খাবার এখন জুটছে না দীপের।

কিন্তু দাঁতে দাঁত চেপে লড়ে যাচ্ছেন থিয়াগো সিলভা আর সার্জিও র‍্যামোসের ভক্ত দীপ। মনে মনে স্বপ্ন দেখছেন, একদিন ঠিক লকডাউনের এই আক্রমণকে কড়া স্লাইডিং ট্যাকল করে মাঠের বাইরে বের করে দেবেন সুঠাম চেহারার এই তরুণ ফুটবলার।

আবার আগের মতো শুধুই ফুটবল নিয়ে কাটবে তার জীবন।